ফের চুরি শহরে।এবার বন্ধ দোকানের টিনের ছাউনি কেটে ভেতরে ঢুকে নগদ টাকা ও জিনিস পত্র চুরির ঘটনা ঘটল।

করোনা আবহেও শহরে চুরির ঘটনা ঘটার বিরাম নেই। এবার শহরের উপকন্ঠে গন্ধেশ্বরী সেতু লাগোয়া ৬০ নাম্বার জাতীয় সড়কের পাশের একটি বন্ধ দোকানের টিনের ছাউনি কেটে ভেতরে ঢুকে জিনিসপত্র ও নগদ টাকা চুরি করে চম্পট দেয় চোরের দল। আজ সকালে ঘটনা টের পান দোকানের মালিক।খবর দেন পুলিশে।ঘটনাস্থলে পোঁছে পুলিশ এই চুরির প্রাথমিক তদন্ত শুরু করে।

ফের চুরি শহরে।এবার বন্ধ দোকানের টিনের ছাউনি কেটে ভেতরে ঢুকে নগদ টাকা ও জিনিস পত্র চুরির ঘটনা ঘটল।
X

বাঁকুড়া২৪X৭ প্রতিবেদন : রাতভর পুলিশি টহল চলে বাঁকুড়া শহরের উপকন্ঠে গন্ধেশ্বরী সেতু লাগোয়া এলাকায়। অথচ সেই জায়গাতেই বাঁকুড়া রানিগঞ্জ ৬০ নম্বর জাতীয় সড়কের পাশের একটি বন্ধ দোকানে বুধবার রাতে ঘটে গেল চুরির ঘটনা। খবর পেয়ে পুলিশ গিয়ে প্রাথমিক তদন্ত করেছে। তবে শহরে একের পর এক চুরির ঘটনার পরে প্রশ্ন উঠতে শুরু করেছে শহরের নিরাপত্তা নিয়েই। স্থানীয় বাসিন্দাদের অভিযোগ, গন্ধেশ্বরী সেতু লাগোয়া এলাকায় রাতে দুষ্কৃতীরা মদ, গাঁজার ঠেক চালায়। এই চুরির ঘটনার পিছনে ওই দুষ্কৃতীদের হাত রয়েছে বলে দাবি বাসিন্দাদের। অবিলম্বে এই এলাকায় পুলিশি সক্রিয়তা বাড়ানো ও রাতে নেশার ঠেক বন্ধ করার দাবি তুলেছেন বাসিন্দারা।

দোকান মালিক অমিত চৌধুরী বলেন, "সকালে এসে দেখি দোকানের চালার টিন খোলা। ভিতরে জিনিসপত্র ছড়িয়ে ছিটিয়ে পড়ে রয়েছে। নগদ দেড় হাজার টাকা সহ বহু জিনিসপত্র চুরি গিয়েছে"।

দেখুন 🎦 ভিডিও। 👇


Next Story